,

রোহিঙ্গাদের সাথে বিয়ের আনন্দ ভাগাভাগি করলেন ফিল্মমেকার দম্পতি

নাগরিক নিউজ: জীবনের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ অধ্যায় যুগলে পদার্পণের ক্ষণটা স্মরণীয় করে রাখতে বিভিন্ন চোখ ধাঁধানো আয়োজন নিত্য চোখে পড়ে। হলিউড-বলিউডের তারকাসহ মুকেশ আম্বানির মত ধনকুবেরের মেয়ের বিয়ের এলাহী কারবারও মিডিয়া পাড়ার হটকেক। এসবের বাইরেও কেউ কেউ ভিন্নভাবে অথচ সাধারণভাবে উদযাপন করে মহতী আয়োজনকে করে তুলেন আরও মহিমান্বিত।
ঠিক এমন একটি ভিন্নধর্মী আয়োজনের মধ্য দিয়ে জাঁকজমক পরিবেশে রাষ্ট্রহীন মজলুম রোহিঙ্গাদের সাথে বিয়ের আনন্দ ভাগাভাগি করলেন খ্যাতিমান নির্মাতা, অহনিশ ফিল্মসের সিইও এইচ আল বান্না ও আন্তর্জাতিক পুরস্কারপ্রাপ্ত নির্মাতা শারমিন চৌধুরী দম্পতি।

এ প্রসঙ্গে এইচ আল বান্না বলেন- ‘প্রথমে আমরা চেয়েছি দেশের সুবিধা বঞ্চিত মানুষদের নিয়ে আমাদের ওয়ালিমার আয়োজন করব। কিন্তু পরে দুজন মিলে সিদ্ধান্ত নিলাম মজলুম রোহিঙ্গাদের সাথে ওয়ালিমার আয়োজন করব। কারণ দেশের যারা সুবিধাবঞ্চিত তাদের অন্তত একটা দেশ আছে। কিন্তু যাদের কোন দেশই নেই তারা তো আরো অসহায়।’

এ দম্পতির ওয়ালিমার আয়োজনে প্রায় আড়াই হাজার রোহিঙ্গাদের দুপুরের খাবার ব্যবস্থা করা হয়।
উৎসবমুখর পরিবেশে বাচ্চারা হৈ হুল্লোড় করে নতুন বর ও বধুকে সংবর্ধনা দিয়েছে। ‘নোয়া বউ’ ‘নোয়া বউ’ বলে হর্ষোৎফুল্ল পরিবেশে আয়োজনটি সম্পন্ন হয়।

আয়োজনটি অর্গানাইজ করতে নিরলসভাবে কাজ করেছেন বাংলাদেশ সেনাবাহিনী, প্রশাসন, ব্রাদার বাহার ও সার্জ ফাউন্ডেশনের তরুণ ভলান্টিয়াররা।

মতামত