দেশে আবাসনে গতিশীলতা ফিরিয়ে আনতে সরকারের কাছে ‘হাউজিং লোন’ নামে ২০ হাজার কোটি টাকার তহবিল গঠনের দাবি জানিয়েছেন রিয়েল এস্টেট অ্যান্ড হাউজিং অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশের (রিহ্যাব) ভাইস প্রেসিডেন্ট ও চট্টগ্রাম রিজিওনাল কমিটির চেয়ারম্যান আবদুল কৈয়ূম চৌধুরী।

মঙ্গলবার (০৬ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে রিহ্যাব চট্টগ্রাম ফেয়ার-২০১৮ উপলক্ষে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ দাবি জানান।

নগরীর চট্টগ্রাম ক্লাবের ব্যাংকুইট হলে লিখিত বক্তব্যে আবদুল কৈয়ূম চৌধুরী বলেন, নিম্ন ও মধ্যবিত্ত শ্রেণির নাগরিকদের এ তহবিল থেকে ৫ শতাংশ সুদে ঋণের ব্যবস্থা করলে আবাসন খাত আরো সমৃদ্ধ হবে। সরকারের রাজস্ব আয়, কর্মসংস্থান, রড, সিমেন্ট, টাইলসসহ ২৬৯ প্রকার লিকেজ শিল্প প্রসারের মাধ্যমে সমগ্র নির্মাণখাত জাতীয় অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধিতে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রেখে আসছে। দেশের অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধিতে নির্মাণখাতের অবদান প্রায় ১৫ শতাংশ।বাংলাদেশের আবাসন শিল্প শুধু আবাসনই সরবরাহ করছে না, একই সাথে ৩৫ লাখ শ্রমিকের উপর নির্ভরশীল ২ কোটি লোকের অন্নের যোগান দিয়েছে। আবাসনখাত নতুন নতুন উদ্যোক্তা সৃষ্টি করছে।

নগরীর পাঁচতারকা হোটেল রেডিসন ব্লুতে বৃহস্পতিবার (০৬ ফেব্রুয়ারি) থেকে চারদিনব্যাপী রিহ্যাব চট্টগ্রাম ফেয়ার ২০১৮ শুরু হবে। চলবে ১১ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত। রিহ্যাব চট্টগ্রাম রিজিয়নের প্রেস অ্যান্ড মিডিয়ার আহ্বায়ক এএসএম আবদুল গাফফার মিয়াজীর সঞ্চালনায় এতে রিহ্যাবের চট্টগ্রাম রিজিওনাল কমিটির কো-চেয়ারম্যান মোহাম্মদ ওমর ফারুক, কো-চেয়ারম্যান (২) ইঞ্জিনিয়ার মো. দিদারুল হক চৌধুরী উপস্থিত ছিলেন।

%d bloggers like this: